নেটফ্লিক্সে অস্কারজয়ী হলিউডের ১০ সিনেমা

অস্কারজয়ী সিনেমার প্রতি দর্শকদের বাড়তি আগ্রহ থাকে সবসময়। ওটিটি প্ল্যাটফর্ম নেটফ্লিক্সের ঝুলিতে রয়েছে এমন অনেক সংগ্রহ। এরমধ্যে দর্শকমহলে প্রশংসিত অস্কারজয়ী সেরা ১০ হলিউড সিনেমা নিয়ে সাজানো হয়েছে এই লেখা।

প্যানস ল্যাবিরিন্থ
গুইলার্মো ডেল টোরো পরিচালিত ‘প্যানস ল্যাবিরিন্থ’ সিনেমাটি ২০০৬ সালের ১১ অক্টোবর মুক্তি পায়। সেরা শিল্প নির্দেশক, সেরা মেকআপ ও সেরা সিনেমাটোগ্রাফি ক্যাটাগরিতে এটি ৭৯তম অ্যাকাডেমি অ্যাওয়ার্ড অর্জন করে। স্প্যানিশ ভাষার মাস্টারপিস সিনেমা বলা হয় এই সিনেমাকে। ভৌতিক গল্পকথার মাধ্যমে এতে ১৯৪০-এর দিকে স্পেনে যে ফ্যাসিবাদের জন্ম হয়েছিলো তার দিকে ইঙ্গিত করা হয়েছে। আইএমডিবি রেটিং ৮.২।

দেয়ার উইল বি ব্লাড
২০০৭ সালে মুক্তি পায় ‘দেয়ার উইল বি ব্লাড’। এতে লোভী সাইকোপ্যাথের চরিত্রে ড্যানিয়েল ডে লিউইসের অভিনয় ব্যাপক প্রশংসিত হয়েছে। পল থমাস এন্ডারসন পরিচালিত সিনেমাটি নির্মাণে ব্যয় হয়েছিল ৭ কোটি ৬২ লাখ ডলার। সিনেমাটোগ্রাফার হিসেবে ছিলেন রবার্ট এলসউইট। সিনেমাটি সেরা সিনেমাটোগ্রাফার ও সেরা অভিনেতা ক্যাটাগরিতে ৮০তম অ্যাকাডেমি অ্যাওয়ার্ড অর্জন করেছে। আইএমডিবি রেটিং ৮.২।

ইনসেপশন
ক্রিস্টোফার নোলান পরিচালিত মাস্টারপিস সিনেমা ‘ইনসেপশন’। লিওনার্দো ডি’ক্যাপ্রিও এতে অভিনয় করেছেন চোরের চরিত্রে। মানুষের স্বপ্নের ভেতর প্রবেশ করে ব্যক্তিগত কথা নিয়ে আসাই ছিলো তার কাজ। ২০১০ সালের ৮ জুলাই মুক্তি পায় এই সিনেমা। নির্মাণে ব্যয় হয় ৮৪ কোটি ৬৮ লাখ ৭৬ হাজার ২০০ ডলার। সেরা সিনেমাটোগ্রাফি, সেরা শব্দ সম্পাদনা, সেরা সাউন্ড মিক্সিং ও সেরা ভিজ্যুয়াল ইফেক্ট বিভাগে ৮৩তম অ্যাকাডেমি অ্যাওয়ার্ড অর্জন করে ‘ইনসেপশন’। আইএমডিবি রেটিং ৮.৮।

দ্য সোশ্যাল নেটওয়ার্ক
ডেভিড ফিংচার পরিচালিত ‘দ্য সোশ্যাল নেটওয়ার্ক’। এই সিনেমায় উঠে এসেছে মার্ক জাকারবার্গের ঘটনা। হার্ভার্ডের গ্র্যাজুয়েশন শেষে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুক প্রতিষ্ঠার কাহিনী দেখানো হয়েছে। এটি মুক্তি পায় ২০১০ সালের ১ অক্টোবর মাসে। সেরা চিত্রনাট্য, সেরা সম্পাদনা, সেরা অরিজিনাল স্কোর ক্যাটাগরিতে ৮৩তম অ্যাকাডেমি অ্যাওয়ার্ড অর্জন করে এই সিনেমা। আইএমডিবি রেটিং ৭.৭।

হুগো
১৯৩০-এর দশকে প্যারিস শহরের একটি রেলস্টেশনে অনাথ হুগো ক্যাবরেট চাচার সঙ্গে বসবাস করতেন। হুগো রেলস্টেশনে তেল ও ঘড়ি নিয়ন্ত্রণের কাজ করত। জীবনসংগ্রাম, শৌখিনতা ও কৌতুকমিশ্রিত সিনেমা ‘হুগো’। ২০১১ সালের ২৩ নভেম্বর মুক্তি পায় মার্টিন স্কর্সিস পরিচালিত এই সিনেমা। এটি নির্মাণে ব্যয় হয় ১৮ কোটি ৫৮ লাখ ডলার। সেরা সিনেমাটোগ্রাফার, সেরা শিল্প নির্দেশক, সেরা ভিজ্যুয়াল ইফেক্ট, সেরা শব্দ সম্পাদনা ও সেরা সাউন্ড মিক্সিং ক্যাটাগরিতে ৮৩তম অ্যাকাডেমি অ্যাওয়ার্ড অর্জন করে এই সিনেমা। আইএমডিবি রেটিং ৭.৫।

দ্য হেটফুল এইট
রেড রক শহরে গৃহযুদ্ধের পর দুজন পালিয়ে থাকা কারাবন্দীকে খুঁজে পাওয়া যায়। তাদের বন্দুকযুদ্ধে হত্যা করা হয়। এই ঘটনায় নির্মিত ‘দ্য হেটফুল এইট’। কুয়েন্টিন টারানটিনো পরিচালিত সিনেমাটি ২০১৫ সালের ৭ ডিসেম্বর মুক্তি পায়। নির্মাণে ব্যয় হয় ১৫ কোটি ৫৮ লাখ। এটি সেরা অরিজিনাল স্কোরে ৮৮তম অ্যাকাডেমি অ্যাওয়ার্ড অর্জন করে। আইএমডিবি রেটিং ৭.৮।

মুনলাইট
সেরা ছবি, সেরা সহ অভিনেতা ও সেরা চিত্রনাট্যে ৮৯তম অ্যাকডেমি অ্যাওয়ার্ড অর্জন করে ‘মুনলাইট’। ব্যারি জেনকিন্স পরিচালিত ছবিটি মুক্তি পায় ২০১৬ সালের ২ সেপ্টেম্বর। নির্মাণে ব্যয় হয় ৬ কোটি ৫৩ লাখ। আইএমডিবি রেটিং ৭.৪।

রোমা
মেক্সিকো শহরে ১৯৭০-এর সালে অ্যান্টনিও ও সোফিয়ার চার সন্তানকে দেখাশুনা করতেন দুজন গৃহ পরিচারিকা। তাদের মধ্যে একজনের নাম ক্লেও। অ্যান্টনিও স্ত্রীকে নিয়ে বেড়াতে গেলে ক্লেও আবিষ্কার করে যে সে গর্ভবতী। এরপর থেকেই জটিল পরিস্থিতি তৈরি হতে থাকে। যা সিনেমাকে নতুন মাত্রা দেয়। আলফনসো কুয়ারন পরিচালিত ‘রোমা’ সিনেমায় সেরা পরিচালক, সেরা বিদেশি ভাষার ছবি ও সেরা সিনেমাটোগ্রাফি ক্যাটাগরিতে ৯১তম অ্যাকাডেমি অ্যাওয়ার্ড অর্জন করে। ছবিটি ২০১৮ সালের ২৭ অক্টোবর মুক্তি পায়। আইএমডিবি রেটিং ৭.৭।

আমেরিকান ফ্যাক্টরি
ওহিও শহরে শিল্প বিপ্লবের পর এক চীনা শিল্পপতি নতুন ফ্যাক্টরি তৈরি করেন। এভাবে কাহিনি এগিয়ে যেতে থাকে। জুলিয়া রিচার্ট ও স্টিভেন বোগনার পরিচালিত ‘অ্যামেরিকান ফ্যাক্টরি’ ২০১৯ সালের ২৫ জানুয়ারি মুক্তি পায়। সেরা ডকুমেন্টারি ফিচার ছবি হিসেবে ৯২তম অ্যাকাডেমি অ্যাওয়ার্ড অর্জন করে। আইএমডিবি রেটিং ৭.৪।

ম্যারেজ স্টোরি
একজন পরিচালক এবং তার অভিনেত্রী স্ত্রীর মধ্যে দাম্পত্যকলহ কেন্দ্র করে সিনেমা কাহিনি আবর্তিত হয়েছে। কলহের কারণে এক পর্যায়ে তারা ডিভোর্সের পথেও পা বাড়ায়। নোয়াহ বাউমবাচ পরিচালিত ছবিটি ২০১৯ সালের ১৫ নভেম্বর মুক্তি পায়। নির্মাণে ব্যয় হয় ২৩ লাখ ডলার। সিনেমাটি সেরা সহ অভিনেত্রী ক্যাটাগরিতে এটি ৯২তম অ্যাকাডেমি অ্যাওয়ার্ড অর্জন করে। আইএমডিবি রেটিং ৭.৯।