যাদের মাঝে মেসি-রোনালদোর ছায়া দেখছেন জিদান

লিওনেল মেসি ও ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদো। গেল এক দশকে দু’জনে ফুটবল বিশ্বে এক দ্বৈত-শাসনই প্রতিষ্ঠা করে বসেছিলেন। তবে শেষ কিছুদিনের পারফর্ম্যান্স বলছে সময় ফুরিয়ে আসছে তাদের। নতুন মেসি-রোনালদো হবেন কে? এমন প্রশ্নও উঠছে হরহামেশাই। সম্প্রতি জিনেদিন জিদানও যোগ দিলেন সে আলোচনায়, নতুন ‘মেসি-রোনালদোর’ ব্যাপারে জানালেন নিজের মত।

নতুন মেসি-রোনালদো বিষয়ে নতুন করে আলোচনা জন্ম নিয়েছে গেল সপ্তাহের দুটো পারফর্ম্যান্স। প্রথমটা খোদ মেসির দল বার্সেলোনার বিপক্ষে তাদেরই মাঠে। কিলিয়ান এমবাপের হ্যাটট্রিকে চ্যাম্পিয়ন্স লিগ থেকে বিদায়ের শঙ্কাও মাথাচাড়া দিচ্ছে কাতালান দলটিতে। এর ঠিক পরদিনই সেভিয়াকে জোড়া গোল করে স্তব্ধ করে দেন বরুসিয়া ডর্টমুন্ড স্ট্রাইকার এর্লিং ব্রট হালান্ড।

জিদান জানালেন, দুটো ম্যাচই মনোযোগ দিয়ে দেখেছেন তিনি। বলেছেন, ‘আমি সব খেলাই দেখি, ভালো বিষয়গুলো উপভোগ করি। এক্ষেত্রে আমি অনেকটা ফুটবল ভক্তদের কাতারেই চলে আসি। পরিষ্কার বলছি, একজন ভক্ত হিসেবেই দেখেছি এটা। আগামীকাল যা করতে হবে আমাদের, সেটা গুরুত্বপূর্ণ। এর বাইরে যাই দেখি, আনন্দ ও মনোযোগ নিয়ে দেখি।’

ন্যু ক্যাম্পকে হতাশায় ডুবিয়ে দেয়া দেয়া হ্যাটট্রিকের পর এমবাপের প্রশংসায় জিদান বললেন, ‘এমবাপে যা করেছে তাতে অবাক হওয়ার কিছু নেই, কারণ আমি আগ থেকেই জানি সে কী করতে পারে!’

শুধু এমবাপেই নন, এরপর দিনই স্পেনে আলো ছড়িয়ে গেছেন আরেক উঠতি তারকা হালান্ড। ফলে প্রশ্নও উঠছে বেশ, নতুন মেসি-রোনালদো দ্বৈরথ কি এ দুজনেই দেখবে ফুটবল-বিশ্ব? জিদানও সম্ভাবনা দেখছেন তেমন কিছুর। বলছেন, ‘আমাদের অপেক্ষা করতে হবে। তারা সত্যিই অনেক ভালো, যেমন ভালো মেসি, রোনালদো, নেইমাররা।’

তবে কিছুটা সময় লাগবে উঠতি এ তারকাদের, অভিমত জিদানের। রিয়ালের ফরাসি এ কোচ অবশ্য মনে করেন, ফুটবলের ভবিষ্যৎ এ তারকারাই। সাবেক বিশ্বকাপজয়ী এ মিডফিল্ডারের কথা, ‘এরা বয়সে অনেক ছোট। এই খেলোয়াড়রাই ফুটবলের বর্তমান ও ভবিষ্যৎ।’