মেদ কমানোর উপায় জেনে নিন

বিভিন্ন অংশে মেদ জমতে পারে। একেক জায়গার মেদ দূর করার জন্য একেক কসরত করতে হয়। তবে নিয়মিত কিছু নিয়ম ও সঠিক খাদ্যাভ্যাস মেনে চললে এর থেকে মুক্তি পাওয়া সহজ হয়। চলুন জেনে নেয়া যাক শরীরের বিভিন্ন অংশের মেদ কমানোর উপায়-

কোমরের মেদ কমানোর উপায়

কোমরের অতিরিক্ত মেদ কমাতে খেতে হবে ফাইবার সমৃদ্ধ খাবার। তবে শুধু ফাইবার সমৃদ্ধ খাবার খেলেই হবে না, পাতে রাখতে হবে প্রোটিনও। মাছ, ডাল, ডিম ও মুরগির মাংস নিয়মিত খাবেন।

কোমরের মেদ কমাতে চাইলে বর্জন করতে হবে ফ্যাট জাতীয় খাবার। সেইসঙ্গে নিয়মিত হাঁটাহাঁটির অভ্যাস করতে হবে। দীর্ঘ সময় ধরে বসে থাকলে কোমরে মেদ জমতে পারে। রান্নার তেল নির্বাচন করার সময় সতর্ক থাকুন। রান্নায় ফ্যাট ফ্রি তেল ব্যবহার করুন।

পেটের মেদ কমানোর উপায়

পেটের মেদ কমানোর একটি উপায় হলো দ্রুত হাঁটা। প্রতিদিন অন্তত বিশ মিনিট দ্রুত হাঁটার অভ্যাস করুন। পাশাপাশি করতে পারেন পুশআপ ব্যায়ামও। উপুড় হয়ে দেহের ভার হাত আর পায়ের পাতার উপর দিয়ে, একবার নিচে নামুন, আরেকবার উপরে তুলুন। এতে অভ্যস্ত হয়ে গেলে এক পা উপরে তুলে তিনবার করুন, পরবর্তী তিনবার অপর পা উপরে তুলে পুশ আপ করুন।

পেটের বাড়তি মেদ কমাতে গ্রিন টি খেতে পারেন। কারণ অতিরিক্ত মেদ কমাতে এটি বেশ কার্যকরী। এই চা হজম ক্ষমতা বাড়িয়ে দেয়, ফলে সহজে মেদ জমতে পারে না। সেইসঙ্গে নিয়মিত প্রচুর পানি পান করুন। দুধ এবং দইজাতীয় খাবার খেতে পারেন। কারণ এতে থাকা ক্যালসিয়াম ফ্যাট বার্ন করতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখে।

ঘাড় ও পিঠের মেদ কমানোর উপায়

ঘাড় ও পিঠের মেদ কমাতে পাতে রাখুন প্রচুর শাক-সবজি খান। পাশাপাশি খাবেন প্রচুর প্রোটিন সমৃদ্ধ খাবার খাবেন। ফ্যাট আমাদের শরীরের জন্যে দরকারী। তাই স্বাস্থ্যকর ফ্যাট খান। ওমেগা ৩ এর মতো ফ্যাট খান। ভেজিটেবল তেল ব্যবহার করুন রান্নায়।

টাটকা মাছ ও মাংস খাওয়ার চেষ্টা করুন। প্রক্রিয়াজাত মাংস খাওয়া বাদ দিন। কারণ এতে ফুড এডিডিটিভ ও স্যাচুরেটেড ফ্যাট বেশি থাকে। ময়দা, সাদা চালের গুঁড়ার বদলে বাদামি চাল, হাতে গুঁড়া করা যব বা আটা খান। ফাইবার সমৃদ্ধ খাবার খান নিয়মিত। চিকিৎসকের সঙ্গে পরামর্শ করে ঘাড় ও পিঠের মেদ দূর করার ব্যায়াম শিখে নিন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *